ব্যতিক্রমী চরিত্রে নিয়মিত
২৩ ফেব্রুয়ারী, ২০১৭ ইং
ব্যতিক্রমী চরিত্রে নিয়মিত
এ সপ্তাহে মুক্তি পাবে নতুন সিনেমা ‘রাঙ্গুন’। এ ছবিতে কঙ্গনা রানাওয়াত আসছেন ভিন্নতর নানা চমক নিয়ে। তার অভিনয়, গেটআপ, মেকআপ, লুক, নাচগান, গ্ল্যামারাস ইমেজ প্রভৃতি নিয়ে নানা আলোচনা চলছে। কঙ্গনার রুপালি পর্দায় ফিরে আসা প্রসঙ্গে লিখেছেন রেজাউল করিম খোকন

২০১৫ সালে তার তিনটি সিনেমা মুক্তি পেয়েছিল। ‘তনু ওয়েডস মানু রিটার্নস’, ‘আই লাভ নিউইয়র্ক’, ‘কাট্টিবাট্টি’—তিনটি ছবিতেই কঙ্গনার পর্দা উপস্থিতিতে ভিন্নতার প্রকাশ ছিল। প্রতিটি ছবিতেই অভিনীত চরিত্রের গভীরে ডুবে যেতে তার আপ্রাণ প্রচেষ্টা ছিল। ৩০ বছর বয়সী কঙ্গনা এখন বলিউডের একজন সুঅভিনেত্রী হিসেবে বিবেচিত হচ্ছেন দর্শক, সমালোচক, চিত্রনির্মাতা সবার কাছে। বলিউডে এক দশকেরও বেশি সময়ের ক্যারিয়ারে বিভিন্ন ধরনের ছবিতে চ্যালেঞ্জিং রোলে অনবদ্য অভিনয়ের মাধ্যমে কঙ্গনা তার অসাধারণত্বের প্রমাণ দিয়েছেন। সমসাময়িক অন্যান্য অভিনেত্রীকে পিছনে ফেলে সেরা অভিনেত্রী হওয়ার দৌড়ে এগিয়ে গেছেন। তিনটি জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার, চারটি ফিল্মফেয়ার অ্যাওয়ার্ডসহ অসংখ্য পুরস্কার অর্জন কঙ্গনার যোগ্যতা প্রমাণ করে। ‘গ্যাংস্টার’, ‘ওহ লামহে’, ‘লাইফ ইন অ্যা মেট্রো’, ‘ফ্যাশন, ‘তনু ওয়েডস মানু’, ‘কৃষ-থ্রি’, ‘কুইন’, ‘তানু ওয়েডস মানু রিটার্নস’—ছবিগুলো তার ক্যারিয়ারকে শক্ত ভিত্তির ওপর প্রতিষ্ঠিত করেছে। বাণিজ্যিক ধারার ছবিতে বিচিত্র চ্যালেঞ্জিং চরিত্র রূপায়ণের মাধ্যমেও নিজেকে সেরা অভিনেত্রীর কাতারে নিয়ে যাওয়া সম্ভব—কঙ্গনা রানাওয়াত এক্ষেত্রে অন্য অনেক অভিনেত্রীর জন্য অনুকরণীয় দৃষ্টান্ত হয়ে উঠেছেন এরমধ্যে। বিশাল ভারদ্বাজ বলিউডের একজন গুণী চিত্রনির্মাতা। তার পরিচালিত সিনেমায় প্রধান নারী চরিত্রে অভিনয়ের মাধ্যমে অতীতে বলিউডের অনেক জনপ্রিয় অভিনেত্রী ঝড় তুলেছেন। এবার ‘রাঙ্গুন’ ছবিতে শহিদ কাপুর ও সাইফ আলি খানের মতো দুই জনপ্রিয় তারকা অভিনেতার বিপরীতে একটি ভিন্নধর্মী নারী চরিত্রে অভিনয়ের সুযোগ পেয়েছেন কঙ্গনা। দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের সময়ের পটভূমিকায় নির্মিত এই পিরিয়ড ড্রামায় তিনি ‘মিস জুলি’ চরিত্রে অভিনয় করেছেন। চরিত্রটি আসলে সেই সময়ের বহুল আলোচিত এক নারী—মেরি অ্যান ইভানস, যাকে সবাই ‘ফিয়ারলেস নাদিয়া’ নামে চিনতেন। তার বাস্তবজীবনের চমকপ্রদ ঘটনাবলি থেকে অনুপ্রাণিত হয়ে ‘মিস জুলি’ চরিত্রটি সৃষ্টি করা হয়েছে। ফিয়ারলেস নাদিয়া চল্লিশের দশকে হিন্দি সিনেমায় স্ট্যান্ট ওম্যান হিসেবে কাজ করতেন। ‘হান্টারওয়ালি’ ছবিটির জন্য তার খ্যাতি রয়েছে। এরকম একটি চরিত্র পর্দায় যথাযথভাবে রূপায়ণের জন্য কঙ্গনা যথেষ্ট পরিশ্রম করেছেন, অনেক কষ্ট সহ্য করেছে। অভিনীত চরিত্রটি রূপায়ণের আগে এ বিষয়ে ধারণা লাভের জন্য নিউইয়র্ক পর্যন্ত ছুটতে হয়েছে তাকে। ‘রাঙ্গুন’ ছবিতে নিজের অভিনয়ে সন্তুষ্ট কঙ্গনা উচ্ছ্বাসিত হয়ে বলেন, ‘আমি আজকাল খুব কম ছবিতে কাজ করছি, বেছে বেছে পছন্দের চরিত্রে অভিনয় করছি। ‘রাঙ্গুন’ ছবিতে ‘মিস জুলি’ চরিত্রটি আমার জন্য মস্ত বড় চ্যালেঞ্জ ছিল। এমন চ্যালেঞ্জিং জটিল চরিত্র পেলে আমি বেশ মজা পাই। এমন একটি ব্যতিক্রমধর্মী চরিত্রে দর্শক আমাকে দেখে বেশ মজা পাবেন, আমি দৃঢ়ভাবে প্রত্যাশা করছি।’

 

 

এই পাতার আরো খবর -
facebook-recent-activity
২৩ ফেব্রুয়ারী, ২০২০ ইং
ফজর৫:১০
যোহর১২:১৩
আসর৪:২১
মাগরিব৬:০১
এশা৭:১৪
সূর্যোদয় - ৬:২৬সূর্যাস্ত - ০৫:৫৬
পড়ুন