বিভিন্ন পদে ৮২ জন নিয়োগ দেবে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়
০১ ফেব্রুয়ারী, ২০১৭ ইং
বিভিন্ন পদে ৮২ জন নিয়োগ দেবে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়
সম্প্রতি পাঁচ ধরনের পদে মোট ৮২ জনকে নিয়োগ দেবে বলে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে জনপ্রশাসন মন্ত্রনালয়। আবেদনকারীকে অবশ্যই বাংলাদেশি হতে হবে। ইতোমধ্যে আবেদন প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে চলবে ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৭ পর্যন্ত। বিস্তারিত লিখেছেন এম হোসাইন

যে পদগুলোতে আবেদন করা যাবে

সাঁট মুদ্রাক্ষরিক কাম কম্পিউটার অপারেটর পদে ৪১ জন, কম্পিউটার অপারেটর পদে ছয়জন, অফিস সহকারি-কাম-কম্পিউটার মুদ্রাক্ষরিক পদে চারজন, ডাটা এন্ট্রি বা কন্ট্রোল অপারেটর পদে আটজন এবং অফিস সহায়ক পদে ২৩ জনসহ মোট ৮২ জনকে নিয়োগ দেওয়া হবে।

যে যোগ্যতা প্রয়োজন

সাঁটমুদ্রাক্ষরিক কাম কম্পিউটার অপারেটর পদে আবেদন করতে হলে প্রার্থীকে অবশ্যই কোনো স্বীকৃত কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতক বা সমমানের ডিগ্রিধারী হতে হবে। সাঁটলিপিতে প্রতি মিনিটে ইংরেজি ৭০ এবং বাংলাতে ৪৫ শব্দ টাইপের দক্ষতা থাকতে হবে। কম্পিউটার টাইপিংয়ে সর্বনিম্ন গতি হতে হবে ইংরেজিতে ৩০ ও বাংলায় ২৫ শব্দ। কম্পিউটারের ওয়ার্ড প্রসেসিংসহ ই-মেইল, ফ্যাক্স পরিচালনায় দক্ষ ও অভিজ্ঞ হতে হবে। কম্পিউটার অপারেটর পদে আবেদন করতে হলে প্রার্থীকে অবশ্যই স্বীকৃত বিশ্ববিদ্যালয় হতে স্নাতক ডিগ্রিধারী পাস হতে হবে। এই পদটিতে বিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থীরা অগ্রাধিকার পাবে। বিভাগীয় ডাটা এন্ট্রি/কন্ট্রোল অপারেটর হিসেবে দুই বছরের অভিজ্ঞতাসম্পন্ন প্রার্থীদের ক্ষেত্রে শিক্ষাগত যোগ্যতা এইচএসসি হলেই হবে। তবে অপারেটর টেস্টে অবশ্যই উত্তীর্ণ হতে হবে। অফিস সহকারী কাম কম্পিউটার মুদ্রাক্ষরিক পদটিতে আবেদন করতে হলে প্রার্থীকে অবশ্যই এইচএসসি পাস হতে হবে। কম্পিউটার টাইপিংয়ে সর্বনিম্ন গতি প্রতি মিনিটে ইংরেজিতে ২০ ও বাংলাতে ২০ শব্দ হতে হবে। কম্পিউটার প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত ও কম্পিউটারের ওয়ার্ড প্রসেসিংসহ ই-মেইল, ফ্যাক্স পরিচালনায় দক্ষ-অভিজ্ঞ হতে হবে। ডাটা এন্ট্রি/ কন্ট্রোল অপারেটর পদে আবেদনের জন্য প্রার্থীকে অবশ্যই এইচএসসি পাস হতে হবে। তবে বিজ্ঞান বিভাগে উত্তীর্ণরা অগ্রাধিকার পাবে। এই পদটিতেও দক্ষতা যাচাইয়ের পরীক্ষা দিতে হবে এবং তাতে অবশ্যই উত্তীর্ণ হতে হবে। অফিস সহায়ক পদটিতে আবেদন করতে হলে প্রার্থীকে অবশ্যই এসএসসি পাস হতে হবে।

বয়স সীমা

সাঁট মুদ্রাক্ষরিক কাম কম্পিউটার অপারেটর এবং অফিস সহকারী-কাম-কম্পিউটার মুদ্রাক্ষরিক পদের জন্য ২৬ ফেব্রুয়ারি- ২০১৭ অনুযায়ী প্রার্থীদের বয়স হতে হবে অনূর্ধ্ব ৩০ বছর। তবে বিভাগীয় প্রার্থীদের ক্ষেত্রে বয়স ৩৫ বছর পর্যন্ত শিথিল যোগ্য। অন্যান্য পদে উক্ত তারিখ অনুযায়ী প্রার্থীদের বয়স হতে হবে ১৮ থেকে ৩০ বছর। তবে মুক্তিযোদ্ধা ও শারীরিক প্রতিবন্ধী কোটাধারী প্রার্থীদের ক্ষেত্রে বয়স ৩২ বছর পর্যন্ত গ্রহণযোগ্য।

বেতন

জাতীয় বেতন স্কেল-২০১৫ অনুযায়ী নিয়োগপ্রাপ্তদের বেতন দেওয়া হবে পদমর্যাদা অনুযায়ী আট হাজার ২৫০ টাকা থেকে ২৬ হাজার ৫৯০ টাকা পর্যন্ত।

আবেদন প্রক্রিয়া

টেলিটকের ওয়েবসাইট (mopa.teletalk.com.bd) থেকে অনলাইনে আবেদন করা যাবে। প্রথম চারটি পদের জন্য আবেদন ফি ১০০ টাকা এবং পঞ্চম পদের জন্য আবেদন ফি ৫০ টাকা টেলিটকের প্রিপেইড নম্বর থেকে নিয়ম অনুযায়ী অনলাইন আবেদনের ৭২ ঘণ্টার মধ্যে জমা দিতে হবে। বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখিত নিয়ম অনুসরণ করে আবেদন প্রক্রিয়া সম্পন্ন করতে হবে। আবেদন করার সুযোগ থাকছে ২৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৭ বিকেল ৫টা পর্যন্ত।

প্রার্থীদের যে শর্তগুলো মানতে হবে

সরকারি, আধা-সরকারি ও স্বায়ত্ত্বশাসিত প্রতিষ্ঠানে কর্মরত প্রার্থীগণকে অবশ্যই যথাযথ কর্তৃপক্ষের অনুমতি নিয়ে আবেদন করতে পারবেন। নিয়োগের ক্ষেত্রে সরকারি বিদ্যমান বিধি-বিধান এবং পরবর্তীতে এ সংশ্লিষ্ট বিধি-বিধানে কোনো সংশোধন হলে তা অনুসরণ করা হবে। লিখিত, মৌখিক ও ব্যবহারিক পরীক্ষায় অংশগ্রহণের জন্য কোনো প্রকার টিএডিএ প্রদান করা হবে না। মৌখিক পরীক্ষার সময় সকল সনদপত্রের মূল কপি প্রদর্শন করতে হবে এবং পূরণকৃত অ্যাপ্লিকেশন ফরমসহ সত্যায়িত এক সেট ফটোকপি দাখিল করতে হবে। এছাড়া জেলার স্থায়ী বাসিন্দার প্রমাণ হিসেবে ইউনিয়ন পরিষদ/পৌরসভা/ সিটি কর্পোরেশন কর্তৃক পদত্ত সনদ এবং আবেদনকারী মুক্তিযোদ্ধা/ শহীদ মুক্তিযোদ্ধার পুত্র-কর্যার পুত্র-কন্যা হলে আবেদনকারী যে মুক্তিযোদ্ধা বা শহীদ মুক্তিযোদ্ধার পুত্র-কন্যার পুত্র-কন্যা এ মমেং সংশ্লিষ্ট ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান/ সিটিকর্পোরেশনের ওয়ার্ড কউন্সিলন/ পৌরসভার কাইন্সিলন কর্তৃক প্রদত্ত সনদের সত্যায়িত ফটোকপি দাখিল করতে হবে। বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়েছে, কর্তৃপক্ষ পদের সংখ্যা হ্রাস/বৃদ্ধি এবং বিজ্ঞপ্তি বাতিল করার অধিকার সংরক্ষণ করে।

আবেদনের শর্তাবলী

পরীক্ষায় অংশগ্রহণে ইচ্ছুকরা টেলিটকের ওয়েবসাইটে আবেদনপত্র পূরণ করতে পারবেন। সেক্ষেত্রে আবেদনের সময়সীমার কথা উল্লেখ করা হয়েছে। অনলাইনে আবেদনপত্র পূরণ ও পরীক্ষার ফি জমা দেওয়ার শুরুর তারিখ ও সময় হচ্ছে ২৬ জানুয়ারি ২০১৭ ও জমাদানের শেষ তারিখ ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৭ তারিখ। আর এই আবেদনপত্র জমা দিতে পারবেন ২৬ ফেব্রুয়ারি বিকাল ৫ পর্যন্ত। এই সময়ের মধ্যে ইউজার আইডি প্রাপ্তগণ অনলাইনে আবেদনপত্র দাখিলের মাধ্যমে পরবর্তী ৭২ ঘণ্টার মধ্যে এসএমএসের মাধ্যমে পরীক্ষার ফি জমা দিতে পারবেন। অনলাইনে আবেদনপত্রের পূরণকৃত তথ্যই যেহেতু সকল ক্ষেত্রে ব্যবহার করা হবে, সেহেতু অনলাইনে আবেদনপত্র দাখিলের পূর্বে পূরণকৃত সকল তথ্যের সঠিকতা সম্পর্কে প্রার্থী নিজে শতভাগ নিশ্চিত হবেন। আবেদনপত্রের একটি প্রিন্টকপি আপনার সহায়ক হিসেবে কাজ করবে। মৌখিক পরীক্ষার সময় এর একটি কপি জমা দিতে হবে।

 

 

 

 

 

এই পাতার আরো খবর -
facebook-recent-activity
১ ফেব্রুয়ারী, ২০২১ ইং
ফজর৫:২১
যোহর১২:১৩
আসর৪:০৯
মাগরিব৫:৪৮
এশা৭:০৩
সূর্যোদয় - ৬:৩৯সূর্যাস্ত - ০৫:৪৩
পড়ুন