রূপচর্চায় হারবাল প্রসাধনী
রফিকুল ইসলাম রবি০১ ফেব্রুয়ারী, ২০১৭ ইং
রূপচর্চায় হারবাল প্রসাধনী
বাণিজ্য মেলা

চুলের খাদ্য যোগায় হারবাল পণ্য। ভেষজ উপাদান দিয়ে তৈরি হয় এসব পণ্য চুলের ফলিকলকে (মূল) অবমুক্ত করে প্রয়োজনীয় খাদ্য যোগায়। ফলে চুলের স্বাভাবিক সৌন্দর্য ফিরে আসে। পাশাপাশি এনে দেয় সুনিদ্রা। গতকাল ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলায় হারবাল পণ্যের স্টলগুলোতে ক্রেতা-দর্শনার্থীদের এমনটিই বোঝাতে দেখা গেল বিক্রেতাদের। এবারের মেলায় ডজনখানেক প্রতিষ্ঠান হারবাল পণ্যের পসরা সাজিয়েছে। পণ্য বিক্রির পাশাপাশি এসব প্রতিষ্ঠানের স্টলে আছে ‘ফ্রি’ চিকিত্সার সুবিধা।

হারবাল পণ্যের প্রতি ক্রেতাদের আস্থা বেড়েছে বলে মনে করেন বিক্রেতারা। তারা বলেন, হারবাল পণ্যের প্রতি এক শ্রেণির মানুষের অনীহা থাকলেও পণ্যের গুণগুতমান ও কার্যকারিতায় দিনদিন সফলতার মুখ দেখছে এসব পণ্যের চিকিত্সা। যারা অন্তত একবার ব্যবহার করেছেন, তারা মুখ ফিরাচ্ছেন না। কোনো ধরনের রাসায়নিক পদার্থের ব্যবহার ছাড়াই এসব পণ্যের উত্পাদন প্রক্রিয়া সম্পন্ন করা হয়। অনেকের এসব পণ্য সেবনে অনীহা থাকে, তাই প্রসাধনী হিসেবে ব্যবহার এক নতুন মাত্রা যোগ দিয়েছে হারবাল চিকিত্সা প্রদ্ধতিতে।

বিক্রেতারা বলেন, আমলকি, রক্তজবা, গোলাপ, হরিতকি, তুলসি, সোনাপাতাসহ বেশ কিছু ভেষজ উপাদানে তৈরি হারবাল প্রসাধনী যেন আকর্ষণীয় হয়ে উঠেছে ক্রেতাদের কাছে। মেলায় হেভেন হারবাল নামক প্রতিষ্ঠানটি এবার নিয়ে এসেছে নতুন ৭টি প্রসাধনী পণ্য। প্রাকৃতিক উপাদান দ্বারা তৈরি এসব পণ্য নিয়ে ক্রেতাদের বেশ কৌতূহল লক্ষ্য করা গেছে। যারা এ প্রসাধনী পণ্যের গুণাগুণ সম্পর্কে জানেন না তারাও জেনে নিচ্ছেন পণ্যের নানা বৈশিষ্ট্য ও গুণাগুণ। আবার অনেক ক্রেতা নিজে ব্যবহার করে উপকৃত হয়েছেন, তারাও আসছেন বন্ধু-বান্ধব বা স্বজনদের নিয়ে এমনটিই জানান প্রতিষ্ঠানের মার্কেটিং ম্যানেজার মো: সরফরাজ (রাজ)।

তিনি বলেন, বিশ্বের সব দেশেই হারবাল পণ্যের প্রতি অন্যরকম আকর্ষণ আছে। বাংলাদেশি মানুষকে দেশীয় হারবাল প্রসাধনীর প্রতি আকৃষ্ট করাই আমাদের প্রচেষ্টা। প্রচারের লক্ষ্যে মেলায় একটি পণ্যের সাথে আরেকটি পণ্য ফ্রি দেয়া হচ্ছে।

প্রতিষ্ঠানটির পণ্যের মধ্যে আছে সানপ্রটেকশন শ্যাম্পু, দিন ও রাতের জন্য দুটি থেরাপি, স্কিন থেরাপি, ব্রেস্ট ক্রিম ও ফেসওয়াশ। এসবের মধ্যে হেয়ার ট্রিটমেন্টের দাম ২ হাজার টাকা, সানপ্রটেকশন শ্যাম্পু ৬শ’ টাকা, কম্ব থেরাপি ৫শ’ টাকা, স্কিন থেরাপি ৯শ’৫০ টাকা, ব্রেস্ট ক্রিম ৯শ’৫০ টাকা, ফেসওয়াশ ৩শ’ টাকা।

এদিকে পিছিয়ে নেই ফ্রেশ এন্ড ফেয়ার কসমেটিকস, এঞ্জেল কসমেটিকস, ল্যাসপ্লাস, পারসনি নামক প্রতিষ্ঠানগুলো। ফ্রেশ এন্ড ফেয়ারের স্টলে পাওয়া যাচ্ছে ফেয়ার-২৪ ফেয়ারনেস ক্রিম, ফ্রেশ এন্ড ফেয়ার মেছতা ক্লিনজার ইমালশন, ফ্রেশ এন্ড ফেয়ার ব্রেস্ট ক্রিম, ফ্রেশ এন্ড ফেয়ার মাদার কেয়ার ক্লিনজার ইমালশন, চন্দন প্যাক, আয়ুর্বেদিক হেনা, হেয়ার রিমুভাল ক্রিম। বিক্রেতা সুমি বলেন, আমাদের পণ্য দেশীয় এবং কোনো পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া নেই। পণ্যের দাম ক্রেতাদের সাধ্যের মধ্যেই। 

 

এই পাতার আরো খবর -
facebook-recent-activity
১ ফেব্রুয়ারী, ২০২১ ইং
ফজর৫:২১
যোহর১২:১৩
আসর৪:০৯
মাগরিব৫:৪৮
এশা৭:০৩
সূর্যোদয় - ৬:৩৯সূর্যাস্ত - ০৫:৪৩
পড়ুন