চারুকলায় বার্ষিক শিল্পকলা প্রদর্শনী শুরু
ইত্তেফাক রিপোর্ট১২ নভেম্বর, ২০১৮ ইং
চারুকলায় বার্ষিক শিল্পকলা প্রদর্শনী শুরু
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের চারুকলা অনুষদের অঙ্কন ও চিত্রায়ণ বিভাগের ৬০ জন শিক্ষার্থীর ৭২টি শিল্পকর্ম নিয়ে অনুষদের জয়নুল গ্যালারিতে শুরু হলো বার্ষিক শিল্পকলা প্রদর্শনী। গতকাল দুপুরে অঙ্কন ও চিত্রায়ণ বিভাগ আয়োজিত সপ্তাহব্যাপী এ প্রদর্শনীর উদ্বোধন করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান।

এতে বিশেষ অতিথি ছিলেন অধ্যাপক রফিকুন নবী, অনুষদের ডিন অধ্যাপক নিসার হোসেন, শিল্পী ও অধ্যাপক শিশির ভট্টাচার্য এবং শিল্পাচার্য জয়নুল আবেদিনের ছেলে প্রকৌশলী ময়নুল আবেদিন।

প্রদর্শনীর উদ্বোধনীতে তেল রঙ, জল রঙ ও পেন্সিল মাধ্যমে এবং নিরীক্ষাধর্মী ক্যাটাগরিতে নয়জন শিক্ষার্থীকে পুরস্কৃত করা হয়। পেন্সিল মাধ্যমে শ্রেষ্ঠ পুরস্কার পেয়েছেন আনিকা রায়, জল রঙ মাধ্যমে পেয়েছেন নাজমুস ছাকিম খান, তেল রঙ মাধ্যমে মো. হেলাল হোসেন, নিরীক্ষাধর্মী মাধ্যমে ফারিয়া খানম। এ ছাড়া শহীদ শাহনেওয়াজ স্মৃতি পুরস্কার পেয়েছেন আরাফাত হোসেন রুবেল, মাহবুব আমীন স্মৃতি পুরস্কার পেয়েছেন সৌরভ ধর, কাজী আব্দুল বাসেত স্মৃতি পুরস্কার পেয়েছেন সৈকত সরকার, দেলোয়ার হোসেন স্মৃতি পুরস্কার পেয়েছেন তন্ময় শেখ ও আনোয়ারুল হক স্মৃতি পুরস্কার লাভ করেন মো. তরিকুল ইসলাম। প্রতিদিন সকাল ১১টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত শিল্পানুরাগীদের জন্য খোলা থাকবে প্রদর্শনীর গ্যালারি। ১৭ নভেম্বর শেষ হবে সাতদিনের এ প্রদর্শনী।

বাংলাদেশ ও ভারতের শিল্পীদের প্রদর্শনী শিল্পকলায়

বাংলাদেশ ও ভারতের প্রথিতযশা ২৬ জন শিল্পীর চিত্রকর্ম নিয়ে শিল্পকলা একাডেমিতে চলছে ১২ দিনের যৌথ প্রদর্শনী। বাংলাদেশের ১৩ জন ও ভারতের ১৩ জন খ্যাতিমান শিল্পীর চিত্রকর্ম দিয়ে সাজানো হয়েছে এ প্রদর্শনী। অংশগ্রহণকারী শিল্পীরা হলেন বাংলাদেশের মনিরুল ইসলাম, আব্দুশ শাকুর শাহ্, আব্দুল মান্নান, শাহাবুদ্দিন আহমেদ, বীরেন সোম, অলকেশ ঘোষ, ফরিদা জামান, রণজিত্ দাস, মনিরুজ্জামান, মাকসদিলি আহসান, প্রদ্যুত কুমার দাস, সুজন দে ও নাজমুল আহসান। ভারতের শিল্পীদের মধ্যে রয়েছেন মকবুল ফিদা হুসেইন, আকবর পদমশী, পরিতোষ সেন, সুহাষ রায়, যোগেন চৌধুরী, অমিতাভ ব্যানার্জী, মানু পারেখ, শক্তি বর্মন, হাকু শাহ্্, নিরেন সেনগুপ্ত, রতন পারিমু, অভিজ্যিত্ রায় ও ইয়াসয়ান্ত শিরওয়াদকর।

গত শনিবার একাডেমির জাতীয় চিত্রশালায় ‘কনটেম্পরারি আর্ট অব বাংলাদেশ-ইন্ডিয়া’ শীর্ষক এ প্রদর্শনীর উদ্বোধন করেন শিল্পী আব্দুশ শাকুর শাহ ও সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব রামেন্দু মজুমদার।

প্রতিদিন সকাল ১১টা থেকে রাত আটটা পর্যন্ত সব শ্রেণির শিল্পানুরাগীর জন্য উন্মুক্ত থাকবে প্রদর্শনীর গ্যালারি। ২১ নভেম্বর শেষ হবে এ প্রদর্শনী।

 

এই পাতার আরো খবর -
facebook-recent-activity
১২ নভেম্বর, ২০১৯ ইং
ফজর৪:৫৩
যোহর১১:৪৩
আসর৩:৩৯
মাগরিব৫:১৭
এশা৬:৩২
সূর্যোদয় - ৬:১১সূর্যাস্ত - ০৫:১২
পড়ুন