বেনাপোলে মোটর পার্টসসহ ভারতীয় ট্রাক জব্দ
০৬ অক্টোবর, ২০১৮ ইং
বেনাপোল (যশোর) সংবাদদাতা

মিথ্যা ঘোষণা দিয়ে ভারত থেকে আমদানিকৃত একটি পণ্য চালান (ভারতীয় ট্রাকসহ) বেনাপোল বন্দরের বড় আঁচড়া এলাকা থেকে জব্দ করেছে কাস্টমস্ কর্তৃপক্ষ। জব্দকৃত পণ্য চালানটির আমদানিকারক ছিলেন ঢাকার একটি ফুটওয়্যার কোম্পানি। যার মেনিফেস্ট নং ৩৫৪৮৯/১, তাং-৩০.৯.১৮। পণ্য চালানটির রপ্তানিকারক প্রতিষ্ঠান ভারতের চন্দ্রা কেমিক্যাল এন্টারপ্রাইজ প্রাঃ লিমিটেড। আমদানিকারক প্রতিষ্ঠান গত ২০ সেপ্টেম্বর-২০১৮ ব্যাংক এশিয়ায় একটি এলসি খোলেন পণ্যটি আমদানি করার জন্য। যার এলসি নং ২০৮২১৮০২০৪৫৩। পণ্য চালানটির  ইনভয়েজ মূল্য দেখানো হয়েছে ২৫৯৬০ মার্কিন ডলার। বেনাপোল  কাস্টমস হাউসের ইনভেস্টিগেশন রিসার্স অ্যান্ড ম্যানেজমেন্ট গ্রুপের একটি  প্রতিনিধি দল জব্দকৃত মালামাল পরীক্ষা করেছেন। পরীক্ষণে পণ্য চালানটির মালামাল ঘোষণায় ছিলো শর্তসাপেক্ষ আমদানিকৃত লেদার অ্যান্ড ফুট ওয়ার ইন্ডাস্ট্রিজ এ ব্যবহারের কাঁচামাল। কিন্তু পরীক্ষণকালে পাওয়া যায় সাত প্যাকেট মোটর পার্টস। যা বাণিজ্যিকভাবে আমদানিযোগ্য।

বেনাপোল কাস্টম হাউসের সহকারী কমিশনার উত্তম চাকমা জানান, মিথ্যা ঘোষণার মাধ্যমে একটি পণ্য চালান বেনাপোল বন্দরে নিয়ে আসছে। এমন সংবাদে সোমবার সকালে বন্দরের বড় আঁচড়া এলাকা থেকে পণ্য বোঝাই একটি ভারতীয় ট্রাক জব্দ করি। যার নং WB23-B-6396. পরে ট্রাকটি বেনাপোল কাস্টম হাউসে নিয়ে আসা হয়। মালামাল দীর্ঘ সময় পরীক্ষা  করে  মিথ্যা ঘোষণা এবং অমিল পাওয়া যায়।  সরকারের রাজস্ব ফাঁকি দিতে  এমন কাজটি করছিল  এ চক্রটি। তবে ট্রাকটি জব্দ করার সময় মেসার্স আব্দুর রউফ এজেন্সী (প্রাঃ) লিমিটেড নামে একটি ক্লিয়ারিং এজেন্ট এর প্রতিনিধি জব্দকৃত মালামাল নিজেদের দাবি করলেও পরবর্তীতে তা অস্বীকার করেন।  বেনাপোল কাস্টম হাউসে বিষয়টি এখন বিচার প্রক্রিয়াধীন।

এই পাতার আরো খবর -
facebook-recent-activity
৬ অক্টোবর, ২০২১ ইং
ফজর৪:৩৬
যোহর১১:৪৭
আসর৪:০৩
মাগরিব৫:৪৫
এশা৬:৫৬
সূর্যোদয় - ৫:৫১সূর্যাস্ত - ০৫:৪০
পড়ুন