বিরামপুরের ব্যবসায়ী হত্যার চারদিন পর খণ্ডিত মস্তক উদ্ধার!
১২ নভেম্বর, ২০১৮ ইং
g দিনাজপুর অফিস ও বিরামপুর সংবাদদাতা

দিনাজপুরের বিরামপুর শহরের বিশিষ্ট ব্যবসায়ীকে গলা কেটে হত্যার চার দিন পর রবিবার দুপুরে পুলিশ নিহতের খণ্ডিত মস্তক উদ্ধার করেছে।

পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, বিরামপুর কলেজ বাজার মহল্লার মৃত নইম উদ্দিন মাস্টারের ছেলে বিশিষ্ট স’মিল ও কাঠ ব্যবসায়ী নূরুজ্জামান পুশি (৪০) গত বুধবার বিকেলে ব্যবসায়ীক টাকা আদায়ের জন্য নবাবগঞ্জ উপজেলার মধ্যমাগুড়া গ্রামের রফিকুলের বাড়িতে যান। ঐদিন সন্ধ্যা থেকে তার মোবাইল বন্ধ পেয়ে স্বজনরা খোঁজাখুঁজি শুরু করে। বৃহস্পতিবার বিকেলে নবাবগঞ্জ উপজেলার মধ্যমাগুড়া গ্রামের ধান ক্ষেত থেকে পুলিশ ওই ব্যবসায়ীর মস্তকবিহীন লাশ উদ্ধার করে। এ ঘটনায় নবাবগঞ্জ থানায় মামলা হয়েছে এবং হত্যাকারী সন্দেহে পুলিশ মধ্যমাগুড়া গ্রামের রফিকুলকে গ্রেফতার করে। এদিকে মাথা না পাওয়ায় গলা কাটা লাশটি দিনাজপুর হিমঘরে রাখা হয়।

গত চার দিন ধরে পুলিশের ব্যাপক অনুসন্ধানের পরও খণ্ডিত মস্তক না পেয়ে নিহতের মহল্লার বাসিন্দারা রবিবার বিরামপুর ঢাকা মোড়ে মানববন্ধন করছিল। এ সময় খণ্ডিত মস্তক উদ্ধারের খবর পেয়ে মানববন্ধন সমাপ্ত করা হয়।

বিরামপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মনিরুজ্জামান মনির জানান, তার নেতৃত্বে বিরামপুর থানা থেকে ১২ জনের পুলিশ দল ও নবাবগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সুব্রত রায়সহ পুলিশের যৌথ অভিযানে নবাবগঞ্জ উপজেলার মধ্যমাগুড়া গ্রামের অপর একটি ধান ক্ষেত থেকে রবিবার দুপুরে নিহত নূরুজ্জামান পুশির খণ্ডিত মস্তক উদ্ধার করেছেন।

 

এই পাতার আরো খবর -
facebook-recent-activity
১২ নভেম্বর, ২০১৯ ইং
ফজর৪:৫৩
যোহর১১:৪৩
আসর৩:৩৯
মাগরিব৫:১৭
এশা৬:৩২
সূর্যোদয় - ৬:১১সূর্যাস্ত - ০৫:১২
পড়ুন