তদন্ত করলে দুদকেরও দুর্নীতি বের হবে
আয়কর মেলা উপলক্ষে সংবাদ সম্মেলনে এনবিআর চেয়ারম্যান
১২ নভেম্বর, ২০১৮ ইং
ইত্তেফাক রিপোর্ট

নিরপেক্ষভাবে তদন্ত করলে দুদকেও (দুর্নীতি দমন কমিশন) কত ধরনের দুর্নীতি হয়, সেটা বের হয়ে আসবে বলে মনে করেন জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) চেয়ারম্যান মোশাররফ হোসেন ভূঁইয়া। তিনি বলেন, সকলের মধ্যেই দুর্নীতি আছে। এই সংস্কৃতির পরিবর্তন দরকার। গতকাল রবিবার রাজধানীর সেগুনবাগিচায় এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ কথা বলেন। আগামীকাল মঙ্গলবার থেকে শুরু হতে যাওয়া সপ্তাহব্যাপী আয়কর মেলা উপলক্ষে ওই সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়।

সম্প্রতি দুদক এনবিআরের বিষয়ে একটি পর্যবেক্ষণ প্রতিবেদন তৈরি করেছে। এতে এনবিআরের আয়কর বিভাগের অভ্যন্তরীণ দুর্নীতির ১৩টি উত্স এবং এসব ?দুর্নীতি প্রতিরোধে ২৩টি সুপারিশ করা হয়। ওই প্রতিবেদন দুদক সম্প্রতি মন্ত্রিপরিষদ সচিব বরাবর জমা দিয়েছে। এ বিষয়ে সাংবাদিকরা দৃষ্টি আকর্ষণ করলে এনবিআর চেয়ারম্যান বলেন, এটি এখনো পাইনি। দুদক যদি শুধুমাত্র আয়কর ও শুল্ক বিভাগকে টার্গেট করে এখানে অফিস করতে চায়, সেটা হবে না। আয়কর ও শুল্ক আইন অনুমোদন করলেই হবে, নইলে নয়। তবে তিনি মনে করেন, সাম্প্রতিক সময়ে এনবিআরের কর্মকর্তাদের মধ্যে দুর্নীতি কমে এসেছে।

নির্বাচনে প্রার্থীদের আয়কর রিটার্ন দাখিলের বাধ্যবাধকতায় শিথিলতা সংক্রান্ত এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, নির্বাচন কমিশন ঘোষণা দেওয়ার পর আমাদের আর কিছু       বলার নেই। নির্বাচনের মধ্যে কোনো বিতর্ক হোক তা আমরা চাই না। তবে নির্বাচনের পর এ বিষয়ে উদ্যোগ নেওয়া হবে বলে জানান তিনি। তিনি বলেন, যারা নির্বাচন করবেন তাদের যদি ট্যাক্স ক্লিয়ার করা থাকে বা যাদের সনদ গ্রহণ করা দরকার, তারা তো নিজ আগ্রহে করছেন। আমরা সবার পেছনে দৌড়াব না। নির্বাচন কার্যক্রম শুরু হয়ে গেছে। এখানে আমরা কিছু করতে যাচ্ছি না। নির্বাচনের কারণে রাজস্ব কম-বেশি হওয়ার সম্ভাবনা নেই।

বিদ্যমান আয়কর অধ্যাদেশে  নির্বাচনে অংশগ্রহণে ইচ্ছুক প্রার্থীদের কর শনাক্তকরণ নম্বর ও রিটার্ন দাখিল বাধ্যতামূলক রয়েছে। আর এনবিআর চেয়েছিল প্রার্থীদের কর পরিশোধের সনদ (ট্যাক্স ক্লিয়ারেন্স সনদ) বাধ্যতামূলক করার। সংবাদ সম্মেলনে এনবিআরের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

এই পাতার আরো খবর -
facebook-recent-activity
১২ নভেম্বর, ২০১৯ ইং
ফজর৪:৫৩
যোহর১১:৪৩
আসর৩:৩৯
মাগরিব৫:১৭
এশা৬:৩২
সূর্যোদয় - ৬:১১সূর্যাস্ত - ০৫:১২
পড়ুন