সৌদি আরবে কর্মী প্রেরণ
অতিরিক্ত অর্থ নেওয়ার অভিযোগে ৩ রিক্রুটিং এজেন্সির লাইসেন্স স্থগিত
ইত্তেফাক রিপোর্ট১৪ নভেম্বর, ২০১৬ ইং
সৌদি আরবগামী কর্মীদের কাছ থেকে সরকার নির্ধারিত অভিবাসন ব্যয়ের চেয়ে অতিরিক্ত অর্থ গ্রহণের অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় তিনটি রিক্রুটিং এজেন্সির লাইসেন্স স্থগিত করা হয়েছে। রিক্রুটিং এজেন্সিগুলো হলো, মেসার্স প্যাট্রিয়ট ইন্টারন্যাশনাল (আরএল-৪৩৩), মেসার্স রাকিব এয়ার ইন্টারন্যাশনাল(আরএল-৮৬৫) এবং মেসার্স শাহীন ম্যানপাওয়ার প্রমোশন (আরএল-৭১৯)। গতকাল রবিবার এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয় এ কথা জানিয়েছে।

প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, সম্প্রতি বাংলাদেশ থেকে কর্মী নিয়োগের ক্ষেত্রে সৌদি আরবের শ্রমবাজার উন্মুক্ত হয়েছে। সরকার সৌদি আরবে গৃহকর্ম পেশায় গমনকারী নারী কর্মীদেরকে সম্পূর্ণ বিনা খরচে এবং পুরুষ কর্মীদের জন্য সর্বোচ্চ অভিবাসন ব্যয় বাবদ ১ লাখ ৬৫ হাজার টাকা নির্ধারণ করেছে। সরকার নির্ধারিত অভিবাসন ব্যয়ের অতিরিক্ত অর্থ লেনদেন না করার জন্য সংশ্লিষ্ট সকলকে অনুরোধ করা সত্ত্বেও হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে মনিটরিং ও এনফোর্সমেন্ট টিম এবং নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের জিজ্ঞাসাবাদে সৌদি আরবগামী কর্মীদের নিকট হতে উচ্চ অভিবাসন ব্যয় গ্রহণের অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় মন্ত্রণালয় ওই তিনটি এজেন্সির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে। একই সঙ্গে উল্লেখিত তিনটি রিক্রুটিং এজেন্সির সাথে কোনো প্রকার আর্থিক লেনদেন না করার জন্য সংশ্লিষ্ট সকলকে অনুরোধ করা হয়েছে।

 

 

 

এই পাতার আরো খবর -
facebook-recent-activity
১৪ নভেম্বর, ২০২০ ইং
ফজর৪:৫৩
যোহর১১:৪৩
আসর৩:৩৮
মাগরিব৫:১৭
এশা৬:৩২
সূর্যোদয় - ৬:১১সূর্যাস্ত - ০৫:১২
পড়ুন