রূপগঞ্জে ইউএনওর হস্তক্ষেপে বাল্য বিবাহ বন্ধ
২০ ডিসেম্বর, ২০১৭ ইং

 রূপগঞ্জ (নারায়ণগঞ্জ) সংবাদদাতা

নারায়ণগঞ্জে রূপগঞ্জে ইউএনওর হস্তক্ষেপে সুলতানা আক্তার (১৫) নামে এক অষ্টম শ্রেণির শিক্ষার্থীর বাল্য বিবাহ বন্ধ করা হয়েছে। বুধবার বিকালে উপজেলার কায়েতপাড়া ইউনিয়নের উত্তরপাড়া এলাকায় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আবুল ফাতেহ  মোহাম্মদ সফিকুল ইসলাম এ বিবাহ বন্ধ করেন।

সুলতানা আক্তার উপজেলার উত্তর পাড়া এলাকার সাদেক মিয়ার মেয়ে। ওই শিক্ষার্থী রূপগঞ্জ ক্যাডেট স্কুলের অষ্টম শ্রেণির শিক্ষার্থী। নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আবুল ফাতেহ  মোহাম্মদ সফিকুল ইসলাম জানান, ১৫ বছরের এক শিক্ষার্থীর বাল্য বিবাহ দেওয়া হচ্ছে এমন সংবাদের ভিত্তিতে একদল পুলিশ নিয়ে তিনি ঘটনাস্থলে যান। বরপক্ষ পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে পালিয়ে যায়। পরে স্থানীয়দের সাথে কথা বলে তিনি বিবাহটি বন্ধ করে দেন। এ সময় ওই শিক্ষার্থীকে তার পরিবার আর বাল্য বয়সে বিবাহ দিবে না বলে প্রতিশ্রুতি দেন।    

এই পাতার আরো খবর -
facebook-recent-activity
২০ নভেম্বর, ২০২১ ইং
ফজর৫:১৪
যোহর১১:৫৬
আসর৩:৪০
মাগরিব৫:১৯
এশা৬:৩৭
সূর্যোদয় - ৬:৩৫সূর্যাস্ত - ০৫:১৪
পড়ুন