কোটি টাকার হ্যান্ডসেট দ্রুত উদ্ধার চায় ‘বিএমপিআইএ’
২৬ আগষ্ট, ২০১৮ ইং
বিমানবন্দর ওয়্যার হাউজ থেকে উধাও হয়ে যাওয়া এসব মোবাইল ফোন আবার বিক্রিও হচ্ছে বাজারে। ফলে সরকারের কোষাগারে অর্থ জমা দিয়ে বৈধ পন্থায় মোবাইল আমদানি করেও হয়রানির শিকার হচ্ছেন ব্যবসায়ীরা

 ইত্তেফাক রিপোর্ট

বিমানবন্দরের ম্যানওয়্যার হাউস-২ থেকে চুরি হয়েছে ১ প্যালেট (৯০০ পিস) মোবাইল ফোন। খোয়া যাওয়া এই সেটগুলো দ্রুত উদ্ধার করে তা আমদানিকারকের কাছে হস্তান্তরের দাবি জানিয়েছেন বাংলাদেশ মোবাইল ফোন ইম্পোর্টার্স অ্যাসোসিয়েশন (বিএমপিআইএ)।

সম্প্রতি এক্সেল টেলিকম লিমিটেড হংকং হতে বিভিন্ন মডেলের স্যামসাং মোবাইল ফোন আমদানি করে। এর দুই দিন পর মোবাইল সেটগুলো হযরত শাহ জালাল বিমানবন্দরে এসে পৌঁছলে তা বিমান বাংলাদেশ এয়ার লাইন্স কর্তৃপক্ষের তত্ত্বাবধানে ম্যানওয়্যার হাউস-২ এ সংরক্ষিত ছিল। আমদানিকৃত মোবাইল ফোনগুলো বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষের কাছ থেকে ছাড়িয়ে আনার সময় ৯০০ পিস (১ প্যালেট) স্যামসাং ফোন পাওয়া যায়নি। খোয়া যাওয়া এই সেটগুলোর আনুমানিক মূল্য ২ কোটি টাকার বেশি।

বিমানবন্দর ওয়্যার হাউজ থেকে উধাও হয়ে যাওয়া এসব মোবাইল ফোন আবার বিক্রিও হচ্ছে বাজারে। ফলে সরকারের কোষাগারে অর্থ জমা দিয়ে বৈধ পন্থায় মোবাইল আমদানি করেও হয়রানির শিকার হচ্ছেন ব্যবসায়ীরা। ধর্না দিতে হচ্ছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর দ্বারে দ্বারে। এর ফলে সময় ও অর্থের পাশাপাশি ব্যবসায়িক ক্ষতির মুখে পড়তে হচ্ছে তাদের।

চুরি হওয়ার ঘটনায় বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষের দায় না নেয়ায় আমদানিকারক গত ২৬ জুলাই বিমানবন্দর থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। মোবাইল ফোনের আইএমইআই নম্বরের মাধ্যমে দেখা যায় খোয়া যাওয়া সেই সেটগুলোর মধ্যে থেকে তিনটি সেট বাংলাদেশেই সক্রিয় রয়েছে। পুলিশের অনুসন্ধানে  রাজধানীর মোতালেব প্লাজার একজন মোবাইল ফোনের পাইকারি বিক্রেতাকে ইতোমধ্যে সংশ্লিষ্ট কাজের সঙ্গে জড়িত হিসেবে শনাক্ত করা হয়েছে। বিষয়টি বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রক সংস্থাকেও অবগত করা হয়েছে। 

এ বিষয়ে বাংলাদেশ মোবাইল ফোন ইম্পোর্টার্স অ্যাসোসিয়েশন (বিএমপিআইএ) এর সভাপতি রুহুল আলম আল মাহবুব বলেন, ‘অনেকদিন থেকেই এরকম চুরি ও অবৈধ হ্যান্ডসেট আমদানি বন্ধে এনইআইআর গড়ে তোলার মাধ্যমে বাংলাদেশের বৈধ ব্যবসায়ী ও ভোক্তার স্বার্থ সংরক্ষণের জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ তথা এনবিআর, বিটিআরসি’র কাছে আবেদন জানিয়ে আসছে বিএমপিআইএ। ন্যাশনাল ইক্যুইপমেন্ট আইডেন্টিটি রেজিস্ট্রি এনইআইআর প্রতিষ্ঠাই হ্যান্ডসেট চুরি যাওয়া ও অবৈধ হ্যান্ডসেট আমদানি বন্ধের অন্যতম পন্থা।’ অহেতুক ঝামেলা এড়াতে মোবাইল ফোন ক্রয়ের সময় ক্রেতাদের সতর্ক থাকতেও বলেন তিনি।

 

 

 

এই পাতার আরো খবর -
facebook-recent-activity
২৬ আগষ্ট, ২০২১ ইং
ফজর৪:২০
যোহর১২:০১
আসর৪:৩৩
মাগরিব৬:২৬
এশা৭:৪১
সূর্যোদয় - ৫:৩৮সূর্যাস্ত - ০৬:২১
পড়ুন