মাছের সঙ্গে এ কেমন শত্রুতা!
০৬ অক্টোবর, ২০১৮ ইং

 

রামগঞ্জে কীটনাশক প্রয়োগে মাছ নিধন

রামগঞ্জ (লক্ষ্মীপুর) সংবাদদাতা

লক্ষ্মীপুরের রামগঞ্জ উপজেলার ইছাপুরে শুক্রবার ভোর রাতে সাইফুল ইসলাম সুমনের মত্স্য খামারে কীটনাশক প্রয়োগ করে ৫ লক্ষাধিক টাকার মাছ নিধন করেছে দুর্বৃত্তরা।

সুত্রে জানা যায়, উপজেলার ইছাপুর গ্রামের আলেখার বাড়ির মমতাজ উদ্দিনের ছেলে সাইফুল ইসলাম সুমন ১০ বছরের জন্য বাড়ির পুকুরটি লীজ নিয়ে তিন বছর যাবত মত্স্য চাষ করে আসছে। একই বাড়ির ছেরাজল হক, মোঃ হাসেম সাইফুল ইসলাম সুমনের বাগানের গাছ কর্তন ও সুপারী নিয়ে গেলে সে থানায় মামলা দায়ের করেন। সৃষ্ট সমস্যা নিরসন করতে বৃহস্পতিবার দুপুরে থানার গোল ঘরে সালিশ বৈঠক হয়। বৈঠক থেকে বাড়ি ফেরার সময় আসামীপক্ষের লোকজন প্রকাশ্যে সুমনের প্রাণনাশসহ ক্ষতি সাধনের হুমকি দেয়। মত্স্য চাষী সাইফুল ইসলাম বলেন, শুক্রবার সকালে বড় সাইজের পোনা মাছ বিক্রি করতে জাল নিয়ে খামারে উপস্থিত হলে পানিতে কিছু মরা মাছ ভাসতে দেখে ইউপি চেয়ারম্যান ও উপজেলা মত্স্য অফিসার এবং থানা পুলিশকে খবর দেয়। তারা ঘটনাস্থলে পৌঁছার আগেই বিভিন্ন প্রজাতির ৫ লক্ষাধিক টাকার মাছ মরে পানিতে ভেসে উঠে।

ইছাপুর ইউপি চেয়ারম্যান সহিদ উল্লাহ বলেন, পানিতে কীটনাশক দেওয়াতে মাছ মরে ভেসে উঠেছে। জায়গা-জমিনের সমস্যা আইন-আদালতের মাধম্যে সমাধান হওয়া উচিত। মাছের সাথে শত্রুতা কোনোভাবেই কাম্য নয়। উপজেলা ভারপ্রাপ্ত মত্স্য কর্মকর্তা মোঃ ইউসুফ মিয়া বলেন, প্রাথমিকভাবে প্রমাণিত হয় বিষাক্ত ওষুধে পোনা মাছ মারা গেছে। পরীক্ষা করতে জলাশয়ের পানি ও মরা মাছ সংরক্ষণ করেছি। রামগঞ্জ থানার এস.আই জহির উদ্দিন বলেন, ঘটনাস্থলে পৌঁছে মরা মাছ দেখেছি। তদন্ত চলছে। দুর্বৃত্তদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

 

 

এই পাতার আরো খবর -
facebook-recent-activity
৬ অক্টোবর, ২০২১ ইং
ফজর৪:৩৬
যোহর১১:৪৭
আসর৪:০৩
মাগরিব৫:৪৫
এশা৬:৫৬
সূর্যোদয় - ৫:৫১সূর্যাস্ত - ০৫:৪০
পড়ুন