রাজশ্রী আচার্যের একক সঙ্গীতানুষ্ঠান
রাজশ্রী আচার্যের একক সঙ্গীতানুষ্ঠান
নগরীর থিয়েটার ইনস্টিটিউট মিলনায়তনে গত ৭ আগস্ট সন্ধ্যায় সম্পন্ন হয়েছে চট্টগ্রামের জনপ্রিয় সঙ্গীতশিল্পী রাজশ্রী আচার্যের একক সঙ্গীতানুষ্ঠান।

দি পিসফুল মিউজিশিয়ানস টিমের আয়োজনে ‘গানে গানে রাজশ্রী’ শিরোনামে একক সঙ্গীতানুষ্ঠানের শুরুতে মঞ্চে উঠেই শিল্পী রাজশ্রী গেয়ে ওঠেন ‘একটি বাংলাদেশ তুমি জাগ্রত জনতার, সারাবিশ্বের বিষ্ময় তুমি আমার অহঙ্কার’ এই জনপ্রিয় দেশাত্মবোধক গানটি। এরপর গেয়ে ওঠেন রবীন্দ্রসঙ্গীত ‘সেই ভালো সেই ভালো, আমারে না হয় না জানো।’ এরপর সঙ্গীতজীবনের নানা কথামালা শ্রোতাদের শুনিয়ে একে একে গান ‘আমি এত যে তোমায় ভালোবেসেছি’, ‘শেষ করো না’, ‘খোলা আকাশ’, ‘আজ আবার সে পথে দেখা হয়ে গেল’, ‘তুমি না হয় রহিতে কাছে’, ‘যাব কি যাব না’, ‘ভালো করে চেয়ে’, ‘এমন মানব জনম’ এমন সব জনপ্রিয় গান।

গানের মাঝখানে শ্রোতাদের উদ্দেশ্যে শিল্পী রাজশ্রী বলেন, ‘ভেবেছিলাম গান হয়তো আর গাইতো পারবো না। কিন্তু না, ফিরেছি। যাদের কারণে আবারও আপনাদের মাঝে ফিরেছি তাদের প্রতি আমি কৃতজ্ঞ।’

এরপর রাজশ্রী গেয়ে ওঠেন কিংবদন্তী শিল্পীদের গাওয়া জনপ্রিয় কয়েকটি হিন্দি গান। একে একে ‘নাম ঘুম জায়েগা’, ‘ইয়ে রাত বিগি’, আশা ভোঁসলের গাওয়া ‘জানে কেয়া বাত হে’, ‘এসামা না’, ‘চুপকে চে’, ‘কেহেনা হি কেয়া’, ‘মো মো কে দাহগে’, ‘তুহি রে’সহ বেশকিছু জনপ্রিয় গান। রাজশ্রীর সুরেলা কণ্ঠে জনপ্রিয় এসব গান মন্ত্রমুগ্ধের মতো শোনেন শ্রোতারা। গান শেষে করতালিতে উষ্ণ অভিনন্দন জানান শিল্পীকে। এই সঙ্গীত আয়োজনে রাজশ্রী আচার্য জনপ্রিয় বাংলা ও হিন্দি ভাষার মোট ১৮টি গান পরিবেশন করেন। অনুষ্ঠানে বাদ্যযন্ত্রে ছিলেন কি-বোর্ডে রুপতনু রুপু ও অসীম চন্দ্র বাপ্পী, একস্টিক গিটারে কলকাতার পার্থ প্রতীম ব্যানার্জী, অক্টোপ্যাডে দোলন মিত্র, তবলায় রাজীব নন্দী, ঢোলে সজল ভট্টাচার্য্য ও লিড গিটারে বাবু। অনুষ্ঠানে সহ-শিল্পী হিসেবে ছিলেন অজয় চক্রবর্তী, ঈষিতা দাশ নিশি, রুমানা ভাবনা ও প্রিয়াঙ্কা চক্রবর্তী। অনুষ্ঠানের শুরুতে চট্টগ্রাম সাংবাদিক ইউনিয়নের সহ-সভাপতি সাংবাদিক নিরুপম দাশগুপ্তের সভাপতিত্বে আলোচনায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন চট্টগ্রাম প্রেসক্লাব সভাপতি কলিম সরওয়ার। এতে বিশেষ অতিথি ছিলেন চিটাগাং কমিউনিকেশন্স লিমিটেডের (সিসিএল) পরিচালক শ্যামল কুমার পালিত ও তরুণ শিল্পপতি মো. কামাল উদ্দিন। অনুষ্ঠানে প্রেসক্লাব সভাপতি রাজশ্রীর প্রশংসা করে বলেন, ‘আমি আশা করি চট্টগ্রামের অন্যতম জনপ্রিয় এই শিল্পী আগামীতেও তার সুরেলা কণ্ঠে শ্রোতাদের ভালো ভালো গান উপহার দেওয়া অব্যাহত রাখবেন।’

 

এই পাতার আরো খবর -
facebook-recent-activity
১০ আগষ্ট, ২০২০ ইং
ফজর৪:১১
যোহর১২:০৪
আসর৪:৪০
মাগরিব৬:৩৯
এশা৭:৫৭
সূর্যোদয় - ৫:৩২সূর্যাস্ত - ০৬:৩৪
পড়ুন