পাকিস্তানকে ইংল্যান্ডের হোয়াইটওয়াশ
স্পোর্টস ডেস্ক০২ ডিসেম্বর, ২০১৫ ইং
তিন ম্যাচ সিরিজের তৃতীয় এবং সর্বশেষ টি-টোয়েন্টিতে গত সোমবার রাতে পাকিস্তানকে সুপার ওভারে হারিয়ে ৩-০ ব্যবধানে  সিরিজ জিতে নিল ইংল্যান্ড। পাকিস্তানকে হোয়াইটওয়াশের মধ্য দিয়ে আগামী বছরে ভারতে অনুষ্ঠিতব্য টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের প্রস্তুতি ভালোভাবেই সেরে নিল ইংলিশরা। প্রথমবারের মতো এক পঞ্জিকা বর্ষে চার সিরিজের প্রত্যেকটিতেও জয়ের রেকর্ড গড়লো অধিনায়ক ইয়ন মর্গানের দল।

সুপার ওভারে প্রথমে ব্যাট করে জর্ডানের দুর্দান্ত বোলিংয়ে মাত্র তিন রান করতে সক্ষম হন পাকিস্তান অধিনায়ক শহীদ আফ্রিদি এবং উমর আকমল। শহীদ আফ্রিদির বলে ধীরে সুস্থে খেলে এক বল হাতে রেখেই জয়ের লক্ষ্যে পৌঁছে যান মর্গান এবং জস বাটলার।  ১৫৫ রানের লক্ষ্যে খেলতে নেমে ১১ রান তুলতেই তিন উইকেট হারালেও শোয়েব মালিকের ৫৪ বলে ৭৫ রানের উপর ভর করে ভালোভাবেই জয়ের দিকে এগুচ্ছিল পাকিস্তান। শেষ ওভারে স্বাগতিকদের প্রয়োজন ছিল ১০ রান। ক্রিস ওকসের দ্বিতীয় বলে ছয় মেরে জয়টাকে হাতের নাগালেই নিয়ে এসেছিলেন সোহেল তানভির। কিন্তু পরের দুই বলে মাত্র এক রান নিতে পারেন তিনি। শেষ দুই বলে যখন পাকিস্তানের দুই রান দরকার তখন মালিককে লং অনে ক্যাচ বানান ওকস। শেষ বলে দুই রান প্রয়োজন হলেও বাই থেকে মাত্র এক রান তুলতে সক্ষম হন তানভির। ফলে খেলা গড়ায় সুপার ওভারে।

এর আগে জেমস ভিনসের ৪৬ এবং শেষের দিকে ওকসকের ৩৭ রানে ভর করে নির্ধারিত ২০ ওভারে ১৫৪ রান করে ইংল্যান্ড।

জয়ের পর অসাধারণ বোলিংয়ের জন্য জর্ডানকে প্রশংসায় ভাসান ইংলিশ অধিনায়ক মর্গান। সেরা বোলারকে রেখে অনিয়মিত জর্ডানকে বল তুলে দেয়ার কারণ ব্যাখ্যা করে মর্গান বলেন, ‘ক্রিস ওকসের বৈচিত্র্যপূর্ণ বোলিং কৌশল রয়েছে। কিন্তু যখন আমরা ছয়টি ইয়র্কারের বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেই তখন সুপার ওভারে জর্ডানকে বেছে নেয়াটা কঠিন ছিল না।’

দুর্দান্তভাবে টেস্ট সিরিজ জিতে নেয়ার পর ওয়ানডে এবং  টি-টোয়েন্টি দু’টিতেই হারলো পাকিস্তান। সংযুক্ত আরব আমিরাতে সর্বশেষ ১১ টি-টোয়েন্টির আটটিতেই হারলো তারা। হতাশা থাকলেও হারের পর ইংল্যান্ডকে কৃতিত্ব দেন পাকিস্তান অধিনায়ক আফ্রিদি। তিনি বলেন, ‘ইংল্যান্ডকে কৃতিত্ব দিচ্ছি। আমরা ভালো খেলেছি এবং ভালো ব্যাটিং করেছি। তবে আরও একবার জয়ের সুযোগ হারিয়েছি।’-ক্রিকইনফো/বিবিসি

 

এই পাতার আরো খবর -
facebook-recent-activity
২ নভেম্বর, ২০২১ ইং
ফজর৫:০৪
যোহর১১:৪৮
আসর৩:৩৫
মাগরিব৫:১৪
এশা৬:৩১
সূর্যোদয় - ৬:২৪সূর্যাস্ত - ০৫:০৯
পড়ুন