নতুন আদলের লিগ আকর্ষণীয় হবে
সালাহউদ্দিন
স্পোর্টস রিপোর্টার১৩ জুন, ২০১৬ ইং
নতুন আদলের লিগ আকর্ষণীয় হবে
বাফুফে সভাপতি কাজী সালাহউদ্দিন ২০০৮ সালে দায়িত্ব নিয়ে দ্রুত মাঠে খেলা গড়িয়েছিলেন, লিগ শুরু করেছিলেন। এরপর নিয়মিত লিগ হয়ে আসছে। কিন্তু বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামে ঘরোয়া লিগে দর্শক উপস্থিতি দেখে অসন্তুষ্ট তিনি। ফেনী এবং চট্টগ্রামের দল ছাড়া বাদবাকি দল ঢাকার। ঢাকার দলগুলো নিজেদের ভেন্যু করেছেন বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামকে। যে কারণে সব খেলা বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামে হয়ে আসছে। খেলা হলেও দর্শক উপস্থিতি প্রত্যাশিত না। শেষ পর্যন্ত বাফুফে লিগটাকে সমানভাবে ভাগ করতে চায়। ঢাকায় দর্শক উপস্থিতি নিয়ে হতাশ বাফুফে সভাপতি কাজী সালাহউদ্দিন। বললেন,‘অনেক তো চেষ্টা করলাম ঢাকায়। কিন্তু আট বছরে কিছুই তো হলো না।’

প্রাথমিক আলোচনায় দেশের ৬ ভেন্যু বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়াম, চট্টগ্রাম এমএ আজিজ স্টেডিয়াম, সিলেট জেলা স্টেডিয়াম, রাজশাহীর মুক্তিযুদ্ধ স্মৃতি স্টেডিয়াম, বরিশাল জেলা স্টেডিয়াম, ময়মনসিংহ জেলা স্টেডিয়ামে ২২ রাউন্ডের খেলা হওয়ার কথা রয়েছে। প্রত্যেক স্টেডিয়ামে পালাক্রমে খেলা হবে। একটা স্টেডিয়ামে টানা ৬ দিন খেলা হবে। চট্টগ্রাম স্টেডিয়ামে ২০ জুলাই খেলা শুরু হলে টানা ৬ দিন খেলা হবে। এভাবে ঘুরে ঘুরে ঢাকায়ও খেলা হবে। প্রতিটি ভেন্যুতে তিন রাউন্ডে অন্তত ১৮টি খেলা হবে। চার ভেন্যুতে চার রাউন্ডে ২৪টি ম্যাচ। গত মৌসুমে ঢাকার বাইরে ১০টি খেলা হয়েছে এবার হতে পারে ১১০টি ম্যাচ। লিগের মোট ম্যাচ ১৩২টি। এই পদ্ধতিতে খেলা হলে দর্শক ছুটবে মাঠে তবে লিগ শিরোপা নির্ধারণী ম্যাচটা ঢাকায় হবে কিনা বলা কঠিন হয়ে যাবে।

দর্শক আয়, টিকিট বিক্রির আয়ের ৭৫ ভাগ অর্থ পাবে সাইফ পাওয়ারটেকের অঙ্গ প্রতিষ্ঠান সাইফ গ্লোবাল স্পোর্টস লিমিটেড (এসজিএস)। তারা পাঁচ বছরের জন্য লিগের স্বত্ব কিনেছে ২০ কোটি টাকায়।

 টিকি বিক্রির ২৫ ভাগ অর্থ পাবে বাফুফে, ডিএফএ ও জেলা ক্রীড়া সংস্থা। লিগের স্বত্ব সাইফ পাওয়ারটেক নিলেও বাফুফে টেকনিক্যাল সাপোর্ট, ম্যাচ সংক্রান্ত সব দায়িত্ব পালন করবে। বাফুফে সভাপতি সালাহউদ্দিন মনে করেন ঘুরে ঘুরে খেলা হলে, দর্শক আসবে। টিভিতে খেলা দেখানো হলে সাড়া পড়বে, বিপণন সুবিধা বাড়বে। তখন ঢাকার বাইরে ভেন্যু নিতে আগ্রহ দেখাবে ক্লাবগুলো। কাজী সালাহউদ্দিন বলেন,‘এভাবে টুর্নামেন্টের আদলে লিগ হোক আমিও চাই না, পরিস্থিতি বাধ্য করেছে। এক-দুই বছর এভাবে চলতে থাকলে ক্লাবগুলোকে পেশাদার কাঠামোয় আনা যাবে। শুরু করি এরপর দেখা যাবে।’

নতুন পদ্ধতিতে লিগ শুরু হলে বর্তমান পেশাদার লিগের কাঠামো বদলে যাবে। তাতে পেশাদার লিগ না হলেও ক্ষতি দেখছে না বাফুফে। খেলার সম্প্রসারণ, মাঠে দর্শক, ক্লাবগুলোর পেশাদার আচরণ— চার বছর পর দায়িত্ব ছাড়ার আগে এমন দেখতে চান তিনি। লিগকে নতুনরুপে মোড় দিতে চান সাইফ পাওয়ারটেকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক তরফদার রুহুল আমিন। মাঠে দর্শক আনতে ভেন্যুতে কনসার্টসহ নানা পরিকল্পনা রয়েছে তাদের।

এই পাতার আরো খবর -
facebook-recent-activity
১৩ জুন, ২০২১ ইং
ফজর৩:৪৩
যোহর১১:৫৯
আসর৪:৩৯
মাগরিব৬:৪৯
এশা৮:১৪
সূর্যোদয় - ৫:১১সূর্যাস্ত - ০৬:৪৪
পড়ুন