ভালো সময়ে বেশি কাজের পক্ষে তামিম
স্পোর্টস রিপোর্টার২৬ আগষ্ট, ২০১৮ ইং
ভালো সময়ে বেশি কাজের পক্ষে তামিম

বর্ণমালা শেখানোর সময় সব শিশুকেই প্রতিটি বর্ণ ধরে ধরে দেখাতে হয়। ব্যাটিংয়েও নতুন কিছু চেষ্টা করতে গেলে প্রতিটি ধাপেই নতুন করে কাজ করতে হয়। বিন্দু বিন্দু করে নির্দিষ্ট শটে নিয়ন্ত্রণ আনতে হয়।

গতকাল সুনসান বিসিবি একাডেমিতে তামিম ইকবালকে দেখা গেল লম্বা সময় পরিশ্রম করতে। বোলিং মেশিন থেকে সজোরে ছুটে আসা বল খেলে গেলেন তিনি। স্কয়ার অব দ্য উইকেটে এখন প্রচুর শট খেলে থাকেন বাঁহাতি এই ওপেনার। কিন্তু সামনেই ইংল্যান্ডে বিশ্বকাপ। যেখানে সোজা ব্যাটে খেলাটা খুব গুরুত্বপূর্ণ। ক্রিকেটীয় ভাষায় বলা হয়- ‘ভি’ এর মাঝে খেলা।

তীব্র রোদে নিজের মেন্টর মোহাম্মদ সালাউদ্দিনের সঙ্গে গতকাল ব্যাটিংয়ে দীর্ঘক্ষণ কাজ করেছেন তামিম। সেখানে সোজা ব্যাটে খেলার অভ্যাসটা ফিরিয়ে আনতেই চেষ্টা করেছেন অভিজ্ঞ এই ব্যাটসম্যান।

ব্যাটিংয়ে শেখার শেষ নেই। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে তিন ফরম্যাটেই বাংলাদেশের পক্ষে সর্বোচ্চ রানের মালিক তামিমের রানের ক্ষুধা তীব্র থেকে তীব্রতর হচ্ছে প্রতিনিয়ত। ব্যাটিং নিয়ে আগের চেয়ে অনেক বেশি পরিশ্রমী এখন তিনি। ঈদের ছুটিতে, বাকি ক্রিকেটাররা যখন বিশ্রামে তখন অনুশীলনে ব্যস্ত তামিম। সর্বশেষ দুটি ঈদে বিসিবিতে এই চিত্র ছিল নিত্য। একদিন পরই শুরু হবে এশিয়া কাপের ক্যাম্প। ছুটি কাটিয়ে আজ থেকেই ফিরতে শুরু করবেন ক্রিকেটাররা। তামিমের ঈদের ছুটিটা ছিল সবচেয়ে সংক্ষিপ্ত। ঈদের একদিন আগে অনুশীলন করেছেন মিরপুরে। গতকাল আবার নেমে গেছেন ব্যাটিংয়ে। 

প্রায় দুই ঘন্টার সেশন ছিল। দুই ভাগে কাজ করেছেন তামিম। প্রথমভাগে বোলিং মেশিনে ব্যাটিং করেছেন। দ্বিতীয়ভাগে কোচ সালাউদ্দিন বল ছুঁড়েছেন এই ওপেনারকে। এক পর্যায়ে থামতে হয়েছিল তামিমকে। কারণ বল এসে পায়ের পাতায় আঘাত করেছিল। তারপরই ব্যাটিং ছেড়ে আসেন তিনি। যদিও বড় কিছু হয়নি।

ড্রাইভ করার সময় ফলো থ্রু’র পূর্ণ ব্যবহারের চেষ্টা করছেন তামিম। জানতে চাইলে গতকাল কোচ সালাউদ্দিন বলেছেন, ‘আপনি যদি দেখেন ড্রাইভ খেলার চেয়ে এখন ওর বেশিরভাগ শট স্কয়ার অব দ্য উইকেট। ড্রাইভ খেলা বর্তমান সময়ে অনেক বড় শক্তি।’

জাতীয় দলের সাবেক এই সহকারী কোচ আরও বলেন, ‘যদিও ড্রাইভ করার সময় পুরো ফলো থ্রু কাজে লাগায় তাহলে সেটা নিশ্চিতভাবেই ওকে সুবিধা দিবে। ইংলিশ কন্ডিশনে এটা কাজে লাগবে।’

ব্যাটিংয়ে ভালোই ফর্মে আছেন তামিম। আর ভালো সময়েই বেশি বেশি কাজ করার পক্ষে অভিজ্ঞ এই ব্যাটসম্যান। তিনি সাংবাদিকদের বলেছেন, ‘আমি বিশ্বাস করি আপনি যখন ভালো ফর্মে থাকবেন তখনই আপনাকে বেশি কাজ করা উচিত। কারণ যখন আপনি বাজে ফর্মে থাকবেন তখন কাজ করা কঠিন।’

দলের অনুশীলনের বাইরে ব্যক্তিগত এসব কাজে সাফল্য আসবে কিনা বলা কঠিন। কিন্তু এতে নিজের প্রস্তুতি শতভাগ হয় বলে বিশ্বাস করেন তামিম। তিনি বলেন, ‘আমি সবসময় বিশ্বাস করি যে, এটা হয়তো আপনাকে সফলতার, রান করার নিশ্চয়তা দিবে না কিন্তু আমি নিজেকে শতভাগ প্রস্তুত রাখতে পারবো কাজটা সহজ করতে। তারপরও নিজেকে প্রস্তুত করার পরও আমি ব্যর্থ হই, অন্তত আমি নিজে নিজেকে বলতে পারবো আমি সর্বোচ্চ চেষ্টা করেছি কিন্তু এটা হয়তো হয়নি। ভালো খেলার জন্য নিজেকে প্রস্তুত করা গুরুত্বপূর্ণ। এবং এটাই আমার বাড়তি কাজের কারণ।’

 

 

এই পাতার আরো খবর -
facebook-recent-activity
২৬ আগষ্ট, ২০২১ ইং
ফজর৪:২০
যোহর১২:০১
আসর৪:৩৩
মাগরিব৬:২৬
এশা৭:৪১
সূর্যোদয় - ৫:৩৮সূর্যাস্ত - ০৬:২১
পড়ুন