‘এই পৃথিবী তোমাদের, শুধু নিজেদের মতো গড়ে নাও’—বারাক ওবামা
০২ ডিসেম্বর, ২০১৫ ইং
‘এই পৃথিবী তোমাদের, শুধু নিজেদের মতো গড়ে নাও’—বারাক ওবামা
 

 

প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা সেই কতিপয় প্রেসিডেন্টদের একজন, যিনি দায়িত্বে থাকাকালীন ৫০টি স্টেট ভ্রমণ করেছেন। সর্বশেষ গিয়েছিলেন সাউথ ডাকোটার লেইক এরিয়া টেকনিক্যাল ইনস্টিটিউটে। গত ৮ মে শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে ভাষণ দেন তিনি। আর সেই ভাষণের কিছু অংশ নিয়ে লিখেছেন ইশরাত বিনতে আফতাব

তোমাদের মনে হয়তো প্রশ্ন জাগতে পারে, কেন এই ছোট্ট শহরের ছোট্ট স্কুলে আমার পদার্পণ। এই প্রশ্নের উদয় হওয়া অস্বাভাবিক কিছু নয়। এখানে আসার পেছনে কারণ হলো, আমি বিশ্বাস করি, এই প্রতিযোগিতাময় ও পরিবর্তনশীল দেশে এখনো কিছু স্কুল-কলেজ গুরুত্বপূর্ণ পদক্ষেপ রেখে চলেছে আমেরিকার অর্থনৈতিক ভবিষ্যতের স্বার্থে। এই কয়েকটি স্কুলের মধ্যে লেইক এরিয়া টেক উল্লেখযোগ্য। অন্যান্য কমিউনিটি কলেজের তুলনায় এই কলেজের ফলাফল ও অগ্রগতি প্রায় তিনগুণ। সুতরাং আমার এখানে আসার কারণ এখন নিশ্চয় পরিষ্কার হয়েছে তোমাদের কাছে। এই যে এতদিনের সাফল্য, সেটার পেছনের কারণ অনেক বড় ও অনেক দিনের ইতিহাস এর সাথে জড়িত। সাফল্য হঠাত্ করে আসে না; বহুদিনের পরিশ্রমের ফসল তোমাদের আজকের ভালো অবস্থান। তোমাদের সবার উদ্দেশে বলছি, আজকে এখান থেকে যারা স্নাতক ডিগ্রি নিয়ে বের হচ্ছো তারা যেভাবে বাইরের দুনিয়াকে মোকাবিলা করবে, সেভাবে এক যুগ আগে তোমাদের প্রথম ব্যাচ করেনি। তোমাদের জন্য সামনে যে দিন আসছে, তা আরও কঠিন ও সম্ভাবনাময়। তোমাদের চোখের সামনে উদাহরণের পরিমাণও অনেক বেশি। তোমাদের প্রজন্ম দেখেছে, কীভাবে উন্নত একটি ব্যবসাক্ষেত্র মুহূর্তে ধূলিসাত্ হয়ে যেতে পারে।

আজকে এখানে তোমাদেরকে উত্সাহিত করতে আসিনি, বরং তোমাদের কাছ থেকে উত্সাহ নিতে এসেছি। তোমরা জীবনের বেশ কঠিন সময় পার করেছ এবং সাহসের সাথে তা মোকাবিলা করে সুস্থ জীবন যাপন করছ। তোমরা চোখের সামনে অনেক বড় অর্থনৈতিক পতন দেখেছ, আবার তার উত্থানও দেখেছ। অনেক আর্থিক কষ্টের মধ্য দিয়েও জীবন পার করেছ। তারপর আবার নিজেদের উপর বিশ্বাস রেখে, নিজের দেশের উপর বিশ্বাস রেখে ফিরে এসেছ সঠিক কক্ষপথে। তোমরা বিশ্বাস করো, আমেরিকাতে যদি তুমি চেষ্টা করো তবে সফল হতে পারবে। এটাই সবচেয়ে বড় উত্সাহদায়ী বিষয়।

শুধু আমাদের দেশ নয়, সবদেশের সবকালের একটাই শপথ—কঠোর পরিশ্রম ও ত্যাগ স্বীকার। এর মধ্য দিয়েই সবদেশ মাথা উঁচু করে বিশ্ব মানচিত্রে দাঁড়িয়েছে। এই মূলমন্ত্র দিয়েই তোমরা নিজেদের সব স্বপ্ন পূরণ করতে পারবে। আমরা জানি, আমাদের স্বপ্ন পূরণ করতে হয়তো অনেক কাঠখড় পোড়াতে হয়েছে, কিন্তু আমরা একসাথে শপথ করতে পারি, আমাদের কাজ দিয়ে ভবিষ্যত্ তরুণদের জন্য এক সুনিশ্চিত জীবন গড়ে তোলার। তারা যেন তাদের সব স্বপ্ন পূরণ করতে পারে সহজে। এই ভবিষ্যত্ তৈরি করে রেখে যাওয়া আমাদেরই দায়িত্ব। দেশের জন্য আমাদের এটা কর্তব্য—যখন আমরা কোনো ভালো সুযোগ পাব, তখন আমার পেছনের জনের জন্যও সেই সুযোগ যাতে বহাল থাকে সেই ব্যবস্থা করে রেখে যাবো। এভাবেই পুরো দেশ এগোবে, আগামীর তরুণরা এগোবে। গ্র্যাজুয়েটস, তোমরা জন্ম থেকে সুযোগ পেয়েছ স্বাধীন রাস্তায় হাঁটার। সেই স্বাধীনতার সঠিক মূল্যায়ন কোরো। তোমাদের আগামী দিনগুলো সহজ হবে না হয়তো, কিন্তু সেই কঠিন সময়ের প্রস্তুতি তুমি আজ থেকে নেওয়া শুরু করো। এই পৃথিবী তোমাদের, শুধু নিজেদের মতো গড়ে নাও।

 

এই পাতার আরো খবর -
facebook-recent-activity
২ নভেম্বর, ২০২১ ইং
ফজর৫:০৪
যোহর১১:৪৮
আসর৩:৩৫
মাগরিব৫:১৪
এশা৬:৩১
সূর্যোদয় - ৬:২৪সূর্যাস্ত - ০৫:০৯
পড়ুন